Wed. Jul 17th, 2024

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 : History Page 488

বিভাগ- ‘ক’ ১| সঠিক উত্তরটি বেছে নিয়ে লেখো:

১.১ মোহনবাগান ক্লাব আই এফ এ শিল্ড জয়লাভ করেছিল—
ক) ১৮৯০ খ্রিস্টাব্দে
খ) ১৯০৫ খ্রিস্টাব্দে
গ) ১৯১১ খ্রিস্টাব্দে
ঘ) ১৯১৭ খ্রিস্টাব্দে।

১.২ সোমপ্রকাশ ছিল একটি—
ক) দৈনিক পত্রিকা
খ) সাপ্তাহিক পত্রিকা
গ) পাক্ষিক পত্রিকা
ঘ) মাসিক পত্রিকা।

১.৩ দাদা সাহেব ফালকে যুক্ত ছিলেন—
ক) চলচ্চিত্রের সঙ্গে
খ) ক্রীড়াজগতের সঙ্গে
গ) ইতিহাস চর্চার সঙ্গে
ঘ) পরিবেশ বিজ্ঞানের সঙ্গে।

১.৪ সতীদাহ প্রথা রদ হয়—
ক) ১৮২৮ খ্রিস্টাব্দে
খ) ১৮২৯ খ্রিস্টাব্দে
গ) ১৮৩০ খ্রিস্টাব্দে
ঘ) ১৮৩১ খ্রিস্টাব্দে।

১.৫ কোল বিদ্রোহ অনুষ্ঠিত হয়েছিল-
ক) মেদিনীপুরে
খ) ঝাড় গ্রামে
গ) ছোটনাগপুরে
ঘ) রাঁচিতে।

আরও পড়ুনঃ 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Bangla Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 English Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 History Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Geography Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Physical Science Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Mathematics Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Life Science Solution 

১.৬ তিতুমিরের প্রকৃত নাম ছিল—
ক) চিরাগ আলি
খ) হায়দার আলি
গ) তোরাপ আলি
ঘ) মির নিশার আলি।

১.৭ সন্ন্যাসী ও ফকির বিদ্রোহের অন্যতম নেতা ছিলেন-
ক রানি কর্মপতি
খ) রানি শিরোমণি
গ) দেবী চৌধুরানী
ঘ) রানী দুর্গাবতী।

১.৮ ভারতের স্বাধীনতা আইন পাশ হয়-
ক) ১৯৪৭-এর ৪ জুলাই
খ) ১৯৪৭-এর ১৮ জুলাই
গ) ১৯৪৭-এর ৩০ জুলাই
ঘ) ১৯৪৭-এর ১৫ আগস্ট।

১.৯ বাংলা ভাষায় প্রথম ছাপা বই হল—
ক) বর্ণপরিচয়
খ) অন্নদামঙ্গল
গ) মঙ্গল সমাচার মতিয়ার
ঘ) গ্রামার অব বেঙ্গলি লেঙ্গুয়েজ।

১.১০ সর্বভারতীয় কিষাণসভার প্রথম সভাপতি ছিলেন—
ক) লালা লাজপত রায়
খ) এন জি রঙ্গ
গ) স্বামী সহজানন্দ
ঘ) বাবা রামচন্দ্র।

১.১১ বর্তমান ভারত গ্রন্থটি রচনা করেন—
ক) অক্ষয়কুমার দত্ত
খ) রাজনারায়ণ বসু
গ) স্বামী বিবেকানন্দ
ঘ) রমেশচন্দ্ৰ মজুমদার।

১.১২ বাবা রামচন্দ্র কৃষক বিদ্রোহে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন-
ক) বিহারে
খ) যুক্ত প্রদেশে
গ) রাজস্থানে
ঘ) মহারাষ্ট্রে।

১.১৩ চট্টগ্রামে ইউরোপীয় ক্লাব আক্রমণের নেতৃত্ব দেন—
ক) ঊর্মিলা দেবী
খ) প্রীতিলতা ওয়াদ্দেদার
গ) কল্পনা দত্ত
ঘ) লীলা রায়।

১.১৪ বাংলার গভর্নর স্ট্যানলি জ্যাকসনকে হত্যা করার চেষ্টা করেন—
ক) সুনীতি চৌধুরী
খ) প্রীতিলতা ওয়াদ্দেদার
গ) কল্পনা দত্ত
ঘ) বীণা দাস।

১.১৫ অ্যান্টি সার্কুলার সোসাইটির সম্পাদক ছিলেন-
ক) কৃষ্ণকুমার মিত্র
খ) চিত্তরঞ্জন দাশ
গ) আনন্দমোহন বসু
ঘ) শচীন্দ্রপ্রসাদ বসু।

 

১.১৬ দলিতদের হরিজন আখ্যা দিয়েছিলেন-
ক) জ্যোতিবা ফুলে
খ) গান্ধীজি
গ) নারায়ণ গুরু
ঘ) ডাঃ আম্বেদকর।

১.১৭ ভাইকম সত্যাগ্রহ অনুষ্ঠিত হয়েছিল-
ক) মালাবারে
খ) মাদ্রাজে
গ) মহারাষ্ট্রে
ঘ) গোদাবরী উপত্যকায়।

১.১৮ সর্বধর্ম সমন্বয়ের আদর্শ প্রচার করেন—
ক) বিজয়কৃষ্ণ গোস্বামী
খ) স্বামী বিবেকানন্দ
গ) কেশবচন্দ্র সেন
ঘ) শ্রীরামকৃষ্ণ।

১.১৯ যে দেশীয় রাজ্যটি গণভোটের মাধ্যমে ভারতীয় ইউনিয়নের সঙ্গে অন্তর্ভুক্ত হয়—
ক) জুনাগড়
খ) কাশ্মীর
গ) হায়দরাবাদ
ঘ) রায়পুর।

১.২০ গোয়া ভারতভুক্ত হয় –
ক) ১৯৬১ সালে
খ) ১৯৭১ সালে
গ) ১৯৮১ সালে
ঘ) ১৯৯১ সালে।

আরও পড়ুনঃ 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Bangla Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 English Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 History Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Geography Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Physical Science Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Mathematics Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Life Science Solution 

বিভাগ-‘খ’ ২ । যে কেনো ষোলোটি প্রশ্নের উত্তর দাও : (প্রতিটি উপবিভাগ থেকে অন্তত একটি করে প্রশ্নের উত্তর দাও) :

উপবিভাগ-২.১ একটি বাক্যে উত্তর দাও :

(২.১.১) ‘তিনকাঠিয়া ব্যবস্থা‘ কোন্ আন্দোলনের সাথে যুক্ত?

উত্তরঃ চম্পারণ সত্যাগ্রহ আন্দোলন। 

Note: চম্পারণ সত্যাগ্রহ আন্দোলন ছিল ভারতের স্বাধীনতা আন্দোলনের একটি গুরুত্বপূর্ণ আন্দোলন। এই আন্দোলনটি ১৯১৭ সালে ব্রিটিশ শাসনের বিরুদ্ধে পরিচালিত হয়।

চম্পারণ জেলায় ব্রিটিশ সরকার একটি নতুন জমিদারি ব্যবস্থা চালু করে। এই ব্যবস্থার নাম ছিল ‘তিনকাঠিয়া ব্যবস্থা’। এই ব্যবস্থায় জমিদাররা কৃষকদের কাছ থেকে অতিরিক্ত খাজনা আদায় করতে শুরু করে।

চম্পারণের কৃষকরা এই ব্যবস্থার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করে। তারা মহাত্মা গান্ধীর নেতৃত্বে চম্পারণ সত্যাগ্রহ আন্দোলন শুরু করে।

এই আন্দোলনের ফলে ব্রিটিশ সরকার ‘তিনকাঠিয়া ব্যবস্থা’ বাতিল করতে বাধ্য হয়।

 

(২.১.২) নিখিল ভারত ট্রেড ইউনিয়ন কংগ্রেস কোথায় প্রতিষ্ঠিত হয়

উত্তরঃ মুম্বাই। 

Note: নিখিল ভারত ট্রেড ইউনিয়ন কংগ্রেস ছিল ভারতের একটি শ্রমিক সংগঠন। এই সংগঠনটি ১৯২৬ সালের ১৫ই মার্চ মুম্বাইয়ে প্রতিষ্ঠিত হয়।

এই সংগঠনের লক্ষ্য ছিল ভারতের শ্রমিকদের অধিকার রক্ষা করা। এই সংগঠন ভারতের স্বাধীনতা আন্দোলনেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

 

(২.১.৩) বাংলার কোন্ শতককে নবজাগরণের শতক বলা হয়?

উত্তরঃ ঊনিশ শতককে। 

Note: ঊনিশ শতকে বাংলায় এক নতুন জাগরণের সূচনা হয়। এই জাগরণের ফলে বাংলার শিক্ষা, সংস্কৃতি, সাহিত্য, ধর্ম ও রাজনীতিতে ব্যাপক পরিবর্তন আসে।

এই জাগরণের ফলে বাংলায় আধুনিক শিক্ষার প্রসার ঘটে। বাংলায় নতুন নতুন সাহিত্যকর্ম রচিত হয়। বাংলায় নবজাগরণের ফলে বাংলার সমাজ ও সংস্কৃতিতে এক নতুন ধারার সূচনা হয়।

 

(২.১.৪) উলগুলান বলতে কী বোঝ?

উত্তরঃ ভয়ঙ্কর বিশৃঙ্খলা। 

Note: উলগুলান একটি বাংলা শব্দ। এই শব্দটির অর্থ হল ভয়ঙ্কর বিশৃঙ্খলা।

উলগুলান শব্দটি সাধারণত সামাজিক অস্থিরতা বা বিশৃঙ্খলার ক্ষেত্রে ব্যবহৃত হয়। উদাহরণস্বরূপ, ১৯৪৬ সালের হিন্দু-মুসলিম দাঙ্গাকে উলগুলান বলা যেতে পারে।

উপবিভাগ-২.২ ঠিক বা ভুল নির্ণয় করো :

(২.২.১) মধ্যবিত্ত শিক্ষিত বাঙালিকে নৃত্যের বিষয় আগ্রহী করে তুলেছিলেন উদয়শঙ্কর।

উত্তরঃ ঠিক। 

ব্যাখ্যাঃ উদয়শঙ্কর ছিলেন একজন বিখ্যাত নৃত্যশিল্পী ও নৃত্যশিক্ষক। তিনি ভারতীয় শাস্ত্রীয় নৃত্যকে বিশ্বের দরবারে পরিচিতি লাভ করান।

উদয়শঙ্কর তার নৃত্য পরিবেশনের মাধ্যমে মধ্যবিত্ত শিক্ষিত বাঙালিকে নৃত্যের বিষয় আগ্রহী করে তুলেছিলেন। তিনি নৃত্যকে একটি আধুনিক শিল্প হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেন।

সুতরাং, বলা যায় যে, মধ্যবিত্ত শিক্ষিত বাঙালিকে নৃত্যের বিষয় আগ্রহী করে তুলেছিলেন উদয়শঙ্কর।

 

(২.২.২) ভারতসভা ইলবাট বিলের বিরোধিতা করেছিল।

উত্তরঃ ভুল। 

ব্যাখ্যাঃ ইলবাট বিল ছিল একটি আইন। এই আইনে ভারতীয়দের জন্য নির্দিষ্ট কিছু পদে নিযুক্তির জন্য বয়সসীমা নির্ধারণ করা হয়েছিল। এই আইনের ফলে ভারতীয়দের জন্য চাকরির সুযোগ কমে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছিল।

ভারতসভা এই আইনের বিরোধিতা করেছিল। তারা এই আইন বাতিলের দাবি করে।

সুতরাং, বলা যায় যে, ভারতসভা ইলবাট বিলের বিরোধিতা করেছিল।

 

(২.২.৩) ফরাজি একটি উপজাতির নাম

উত্তরঃ ঠিক।

ব্যাখ্যাঃ ফরাজি হল একটি উপজাতির নাম। এই উপজাতিটি ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে বাস করে। এই উপজাতির লোকেরা তাদের নিজস্ব ভাষা ও সংস্কৃতিতে গর্ব করে।

সুতরাং, বলা যায় যে, ফরাজি একটি উপজাতির নাম।

 

(২.২.৪) বাংলায় লাইনো টাইপ প্রবর্তন করেন ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর।

উত্তরঃ ভুল।

ব্যাখ্যাঃ লাইনো টাইপ হল একটি নতুন ধরনের টাইপ। এই টাইপটিতে একই লাইনে একাধিক অক্ষর মুদ্রণ করা যায়। লাইনো টাইপের আবিষ্কার হয় ১৮৮৫ সালে।

বাংলায় লাইনো টাইপ প্রথম ব্যবহার করেন সুরেশচন্দ্র মজুমদার। তিনি ১৯০৫ সালে আনন্দবাজার পত্রিকার জন্য লাইনো টাইপ ব্যবহার করেন। সুরেশচন্দ্র মজুমদার ছিলেন একজন বিখ্যাত মুদ্রণ শিল্পী ও আনন্দবাজার পত্রিকার অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা।

সুতরাং, বলা যায় যে, বাংলায় লাইনো টাইপ প্রবর্তন করেন সুরেশচন্দ্র মজুমদার।

 

উপবিভাগ : ২.৩ ‘ক’ স্তম্ভের সঙ্গে ‘খ’ স্তম্ভ মেলাও :

‘ক’ স্তম্ভ ‘খ’ স্তম্ভ
(২.৩.১) অরবিন্দ ঘোষ (১) আজাদ হিন্দ ফৌজ
(২.৩.২) তারকনাথ পালিত (২) বেঙ্গল ন্যাশনাল স্কুল
(২.৩.৩) নবগোপাল মিত্র (৩) বেঙ্গল টেকনিক্যাল ইন্সস্টিটিউট 
(২.৩.৪) রশিদ আলি (৪) হিন্দুমেলা

উত্তরঃ 

‘ক’ স্তম্ভ ‘খ’ স্তম্ভ
(২.৩.১) অরবিন্দ ঘোষ (২) বেঙ্গল ন্যাশনাল স্কুল
(২.৩.২) তারকনাথ পালিত (৩) বেঙ্গল টেকনিক্যাল ইন্সস্টিটিউট 
(২.৩.৩) নবগোপাল মিত্র (৪) হিন্দুমেলা
(২.৩.৪) রশিদ আলি (১) আজাদ হিন্দ ফৌজ

 

উপবিভাগ-২.৪ প্রদত্ত ভারতবর্ষের রেখামানচিত্রে নিম্নলিখিত স্থানগুলি চিহ্নিত ও নামাঙ্কিত করো :
(২.৪.১) চুয়াড় বিদ্রোহের এলাকা
(২.৪.২) মুণ্ডা বিদ্রোহের এলাকা
(২.৪.৩) ঝাঁসি
(২.৪.৪) জুনাগড়।

 

 

উপবিভাগ-২.৫ নিম্নলিখিত বিবৃতিগুলির সঙ্গে সঠিক ব্যাখ্যাটি নির্বাচন করো :

(২.৫.১) বিবৃতি : একা আন্দোলন সংগঠিত হয়েছিল উত্তরপ্রদেশে।
ব্যাখ্যা-১ : এটি ছিল ব্যক্তিগত আন্দোলন।
ব্যাখ্যা-২ : এটি ছিল কৃষক আন্দোলন
ব্যাখ্যা-৩ : এটি ছিল শ্রমিক আন্দোলন।

উত্তরঃ ব্যাখ্যা-২ : এটি ছিল কৃষক আন্দোলন

 

(২.৫.২) বিবৃতি : ভারত সরকার ১৯২৯ খ্রিস্টাব্দে মীরাট ষড়যন্ত্র মামলা শুরু করে।
ব্যাখ্যা-১ : এর উদ্দেশ্য ছিল বিপ্লবীদের দমন করা।
ব্যাখ্যা-২ : এর উদ্দেশ্য ছিল দেশব্যাপী সাম্যবাদী কার্যকলাপ দমন করা।
ব্যাখ্যা-৩ : এর উদ্দেশ্য ছিল আইন অমান্য আন্দোলন দমন করা।

উত্তরঃ ব্যাখ্যা-২ : এর উদ্দেশ্য ছিল দেশব্যাপী সাম্যবাদী কার্যকলাপ দমন করা।

 

(২.৫.৩) বিবৃতি : বিশ শতকে ভারতে উপনিবেশ-বিরোধী আন্দোলনে বামপন্থীদের উল্লেখযোগ্য ভূমিকা ছিল।
ব্যাখ্যা-১ : বামপন্থীরা ছিল জমিদার ও শিল্পপতিদের সমর্থক।
ব্যাখ্যা-২ : তারা ছিল ব্রিটিশ সাম্রাজ্যবাদের সমর্থক।
ব্যাখ্যা-৩ : তারা ছিল শ্রমিক-কৃষকদের ব্রিটিশ-বিরোধী ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের সমর্থক।

উত্তরঃ ব্যাখ্যা-৩ : তারা ছিল শ্রমিক-কৃষকদের ব্রিটিশ-বিরোধী ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের সমর্থক।

 

(২.৫.৪.) বিবৃতি : ভারতের নারীসমাজ জাতীয় আন্দোলনে প্রথম অংশগ্রহণ করেছিল বঙ্গভঙ্গ বিরোবধী আন্দোলনের সময়।
ব্যাখ্যা-১ : কারণ তারা গান্ধীজির দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়েছিল।
ব্যাখ্যা-২: কারণ তারা বিদেশি দ্রব্য বর্জন করতে চেয়েছিল।
ব্যাখ্যা-৩ : কারণ তারা অরবিন্দ ঘোষের বিপ্লবী আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়েছিল।

উত্তরঃ ব্যাখ্যা-২: কারণ তারা বিদেশি দ্রব্য বর্জন করতে চেয়েছিল।

আরও পড়ুনঃ 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Bangla Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 English Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 History Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Geography Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Physical Science Solution

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Mathematics Solution 

Madhyamik ABTA Test Papers 2024 Life Science Solution 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Insert math as
Block
Inline
Additional settings
Formula color
Text color
#333333
Type math using LaTeX
Preview
\({}\)
Nothing to preview
Insert
error: Content is protected !!